top of page

ফুটপাতে ব্যবসা আপাতত বন্ধ, অন্যান্য দোকান বিকেল তিনটে পর্যন্ত

জেলাবাসীর দুশ্চিন্তা বাড়িয়ে মোট আক্রান্তের সংখ্যা চারশ থেকে পাঁচশ হয়েছে মাত্র চারদিনে। করোনা সংক্রমণের এই বৃদ্ধির হার উদ্বেগজনক। জেলার দুই পুরসভা এলাকাতেও বেড়ে চলেছে সংক্রমণ। শেষ ২৪ ঘণ্টায় ইংরেজবাজারে নতুন ১২ জন আক্রান্তের খোঁজ মিলেছে। রবিবার জেলা প্রশাসনিক ভবনে এক জরুরি বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়, ফুটপাতে বসা সমস্ত দোকান আপাতত বন্ধ থাকবে। সাথে সবজি ও মাছ বাজার সকাল ১০টা পর্যন্ত ও অন্যান্য দোকান বিকেল তিনটে পর্যন্ত খোলা থাকবে। এই সময়সীমার বাইরে কেউ দোকান খোলা রাখলে প্রশাসন কড়া ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।



স্বাস্থ্যবিভাগ সূত্রে জানা গেছে, শেষ ২৪ ঘণ্টায় মালদা মেডিকেল কলেজের পরীক্ষাগারে ৩৪ জনের রিপোর্ট ‘পজিটিভ’ মিলেছে। এরমধ্যে মালদা জেলায় নতুন ২৫ জন আক্রান্তের খোঁজ মিলেছে। সাথে দক্ষিণ দিনাজপুরের নয়জন সংক্রমিত। এই জেলার নতুন করে করোনা আক্রান্তদের স্বাস্থ্যবিধি মেনে যথাযথ চিকিৎসার প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে৷ রাজ্য সরকারের গতকালের বুলেটিন অনুযায়ী গতকাল কোনও সুস্থতার খবর না পাওয়া গেলেও শনিবার পর্যন্ত সুস্থ হয়ে উঠেছেন জেলায় মোট ৩৩০ জন। অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা ২০২ জন অর্থাৎ সুস্থ হয়ে উঠেছেন প্রায় ৬২ শতাংশ মানুষ।






এদিকে জেলার দুই পুরসভা এলাকায় প্রতিদিন বাড়ছে সংক্রমণ। শনিবারও ইংরেজবাজারে ১২ জন নতুন আক্রান্তের খোঁজ পাওয়া গেছে। অভিজ্ঞ মহলের মতে গোষ্ঠী সংক্রমণের আশঙ্কা আর উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না। রবিবার জেলা প্রশাসনিক ভবনে মার্চেন্ট চেম্বার অফ কমার্স ও দুই পুরসভার সদস্যদের সাথে বৈঠকে বসেন জেলাশাসক। সংক্রমণের হারে রাশ টানতে বেশ কিছু কড়া পদক্ষেপ নেওয়া হয় সেখানে। বৈঠক শেষে মার্চেন্ট চেম্বার অফ কমার্সের সম্পাদক জয়ন্ত কুণ্ডু জানালেন, সবজি ও মাছের বাজার সকাল ১০টায় বন্ধ হবে। সকাল ১১টার পর বাজারে আর কেউ থাকবে না। দুই শহরের অন্যান্য ব্যবসায়ীরা বিকেল তিনটে পর্যন্ত কেনাবেচা করবেন। আর ফুটপাতের দোকান আপাতত বন্ধ থাকবে। কারণ ফুটপাত থেকে সংক্রমণ ছড়াচ্ছে। এর অন্যথা হলে ব্যবসায়ীয় বিরুদ্ধে জেলাপ্রশাসন আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।




জেলাশাসক রাজর্ষি মিত্র জানালেন, শহরের যে সমস্ত এলাকায় সংক্রমণ ধরা পড়েছে তা যেন অধিকতর গোষ্ঠী সংক্রমণের দিকে না যায়, তার জন্য আজ বেশ কিছু নতুন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এই সিদ্ধান্তগুলি সোমবার থেকে কার্যকরী করা হবে। অযথা কোনও স্থানে একত্রিত হয়ে জটলা করলে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে। বাণিজ্য মহল স্বতঃস্ফূর্তভাবে কিছু প্রস্তাব এনেছে, সেইমতো সোমবার থেকে বাজারগুলির সময়সীমা নিয়ন্ত্রণ করা হবে। তবে যানবাহন আগের মতোই চলবে।

টপিকঃ #CoronaVirus


বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page