top of page

জেলায় দেড় হাজার ছাড়িয়ে গেল আক্রান্তের সংখ্যা

দেড় হাজারের গণ্ডি পেরোলো জেলায় করোনা সংক্রমিতের সংখ্যা। গতকাল জেলায় নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন আরও ৮৩ জন। এনিয়ে জেলায় সংক্রমণের সংখ্যা দাঁড়াল ১৫৩০। গতকাল জেলায় এক সাংবাদিকের লালারসের নমুনায় করোনার হদিস মিলেছে। পাশাপাশি গতকাল সংক্রমিত এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে বলেও খবর। যদিও এপ্রসঙ্গে স্বাস্থ্য দফতরের কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।


over one and a half thousand corona victims in the district

মালদা মেডিকেল সূত্রে জানা গেছে, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে করোনায় যারা সংক্রমিত হয়েছেন তাদের বেশিরভাগ রতুয়া এলাকার। সংক্রমিতদের মধ্যে রয়েছেন একজন সাংবাদিক ও ছয়জন ব্যাঙ্কের কর্মী। সংক্রমিতদের সকলকেই হোম আইসোলেশন থাকার পরামর্শ দিয়েছে স্বাস্থ্য দফতর। এদিকে গতকাল করোনা সংক্রমিত এক যুবকের মৃত্যুকে ঘিরে হইচই পড়েছে জেলায়। জানা গিয়েছে ওই যুবকের হৃদযন্ত্রের সমস্যা ছিল। এরপর তিনি করোনায় সংক্রমিত হয়েছিলেন। গতকাল কোভিড হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে ওই যুবকের মৃত্যু হয়।




শেষ ২৪ ঘণ্টায় সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ রতুয়ায়, সেখানে দুটি ব্লক মিলিয়ে ৪০ জন আক্রান্ত হয়েছেন। রতুয়া এক নম্বর ব্লকে ১৭ জন আক্রান্ত। সংক্রমিতরা বৈকুন্ঠপুর, রতুয়া, কাহালা, রাজকিশোরটোলা, বাবলাবোনা ও ফরিদপুর এলাকার বাসিন্দা। তবে রতুয়া-২ নম্বর ব্লকে সংক্রমিতের সংখ্যা বেশি। খেড়িয়া, কুমারগঞ্জ, মহারাজপুর, রানিনগর, পলাশবোনা, পুখুরিয়া, গোবরজনা, চাঁদপুর, পরাণপুরে ২৩ জন আক্রান্ত। এছাড়া ১১ জন আক্রান্ত হয়েছেন পুরাতন মালদার দেবীপুর কলোনি, বাচামারি, কৈলাসপুর, কাজিদ্বারা, কর্মকার পাড়া, ঘোষপাড়া, রবীন্দ্রপল্লী, রামচন্দ্রপুর এবং মুচিয়া অঞ্চলে।


ইংরেজবাজারের শহর এলাকায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৪ জন। এই সংক্রমণগুলি পাওয়া গেছে সর্বমঙ্গলাপল্লী, পূর্ব হায়দরপুর, প্রান্তপল্লী, কুতুবপুর, বিধানপল্লী, কেজে সান্যাল রোডে। নম্বর ওয়ান গভর্নমেন্ট কলোনির বহুতল আবাসনের একটি পরিবারের চারজন আক্রান্ত হয়েছেন একসাথে। এছাড়া ইংরেজবাজার ব্লকের নরহাট্টা গোবিন্দপুরে আক্রান্ত হয়েছেন দুইজন। কালিয়াচকের তিনটি ব্লকে সংক্রমিত ১২ জন, মানিকচকে চারজন ও হরিশ্চন্দ্রপুর-১ ব্লকে একজন।


টপিকঃ #CoronaVirus

বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page