top of page

সম্পত্তি হাতাতে বৃদ্ধ বাবা-মাকে মারধর, নির্বিকার পুলিশ

সম্পত্তির ভাগ মিললেও সন্তুষ্ট হয়নি। বাকি সম্পত্তির লোভে বৃদ্ধ মা-বাবাকে মারধরের অভিযোগ উঠল ছেলে-বউমার বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে মালদা জেলার হবিবপুর থানার দক্ষিণ চাঁদপুর গ্রামের হরিপুর এলাকায়।


হবিবপুরের দক্ষিণ চাঁদপুর এলাকায় বসবাস মহাবীরচন্দ্র মণ্ডল (৮৭) ও তাঁর স্ত্রী রাধারানী মণ্ডল (৭৫)। তাঁদের পাঁচ ছেলেমেয়ে। বড়ো ছেলে সুধাংশু কৃষিকাজ করে জীবিকা নির্বাহ করে। ছোটো ছেলে গৌতম মণ্ডল দীর্ঘ ২০ বছর ধরে ভিনরাজ্যে একটি বেসরকারি সংস্থায় কর্মরত।



সম্পত্তির লোভে বৃদ্ধ মা-বাবাকে মারধরের অভিযোগ উঠল ছেলে-বউমার বিরুদ্ধে

মহাবীরবাবু ছেলেমেয়েদের বিয়ের পরেই সমস্ত সম্পত্তি ছেলেমেয়েদের মধ্যে ভাগ করে দেন। কিন্তু তাতে সন্তুষ্ট হয়নি সুধাংশু। অভিযোগ, বাকি সম্পত্তির লোভে মহাবীরবাবু ও তাঁর স্ত্রীর ওপর অত্যাচার শুরু করে সুধাংশু ও তার স্ত্রী। সম্পত্তি হাতাতে মা-বাবাকে মারধরও করত ছেলে-বউমা বলে অভিযোগ। সমস্ত ঘটনা একাধিকবার থানায় জানিয়েছেন মহাবীরবাবু। কিন্তু কোনও ফল হয়নি। বাধ্য হয়ে তাঁর মহকুমাশাসকের দ্বারস্থ হয়েছেন।


মহাবীরবাবু জানান, বিয়ের পরেই ছেলেদের সম্পত্তি ভাগ করে দিয়েছি। তা সত্ত্বেও বড়ো ছেলে ও বউমা বাকি সম্পত্তি হাতাতে প্রতিনিয়ত গালিগালাজ করছে, মারধর করছে। পুলিশে অভিযোগ করে ফল মেলেনি। বাধ্য হয়ে মহকুমাশাসকের কাছে এসেছি।

Comments


বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page