top of page

বাংলাভাগের দাবিতে গ্রেফতারির নিদান অধীর চৌধুরির

বাংলাভাগ ইশ্যু নিয়ে গরম রাজ্যের রাজনীতি। এক সময়ের গনির গড়ে সভা করতে এসে বাংলাভাগ ইশ্যু নিয়ে প্রতিবাদ প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতির। বাংলা ভাগের দাবি তুললেই গ্রেফতারির নিদান দিচ্ছেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি।


সামনে পঞ্চায়েত নির্বাচন। এক সময় কংগ্রেসের গড় বলে পরিচিত মালদা জেলায় কংগ্রেসের অস্তিত্ব বাঁচিয়ে রেখেছেন আবু হাসেম খান চৌধুরি। আসন্ন পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগে কংগ্রেসের সেই গড় ফিরিয়ে আনতে মরিয়া কংগ্রেস নেতৃত্ব। আজ দুপুরে কোতোয়ালি ভবনে বৈঠকে আসেন দলের রাজ্য পর্যবেক্ষক ড. এ চেল্লাকুমার, প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীররঞ্জন চৌধুরি। জেলার একমাত্র নির্বাচিত জনপ্রতিনিধি আবু হাসেম খান চৌধুরি ও ইশা খান চৌধুরিকে নিয়ে দীর্ঘক্ষণ রুদ্ধদ্বার বৈঠক করেন তাঁরা।


সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে অধীর জানান,

ভোট হবে কিনা জানি না৷ তবে ভোট হলে কংগ্রেস লড়বে৷ মানুষ প্রতিবাদ করবে, প্রতিরোধ করবে৷ মালদা, মুর্শিদাবাদ কংগ্রেসের দখলে ছিল৷ দুই জেলারই জেলাপরিষদও কংগ্রেসের দখলে ছিল৷ এসব জোর করে কেড়ে নেওয়া হয়েছে৷ মালদা আর মুর্শিদাবাদকে উদ্ধার করতে কংগ্রেস ময়দানে নেমেছে। গত পরশু মুর্শিদাবাদে সভা হয়েছে, আজ মালদায় সভা হবে। এরপর রায়গঞ্জে সভা করব৷ ভোটে সন্ত্রাসের আশঙ্কা আছেই৷ বিরোধীদের সুযোগ না দিতে রাজ্য সরকার খসড়া তালিকা প্রকাশ করেছে৷ কংগ্রেস এর বিরুদ্ধেও লড়বে।


বাংলাভাগ ইশ্যুতে অধীরের বক্তব্য, নির্বাচন এগিয়ে আসছে৷ বাজার গরম করতে বাংলা ভাগের কথা উঠছে৷ এসব দিদি আর মোদী মিলেমিশে করে৷ এভাবে রাজ্যের সাম্প্রদায়িক বাতাবরণকে উত্তপ্ত করে দেওয়া হচ্ছে৷ অনন্ত মহারাজদের মতো যারা বাংলা ভাগের কথা বলবে, তাদের এখনই গ্রেফতার করা উচিত৷ এর পিছনে বিজেপি কিংবা তৃণমূলের মদত রয়েছে৷ দিদি চুরি করতে আর চোরকে বাঁচাতে ব্যস্ত৷ মোদী সিবিআই আর ইডিকে কাজে লাগাচ্ছেন৷ তাই দিদির মুখে মোদীর কথা নেই৷ কংগ্রেস কোনোমতেই বাংলাভাগ হতে দেবে না।




আমাদের মালদা এখন টেলিগ্রামেও। জেলার প্রতিদিনের নিউজ পড়ুন আমাদের অফিসিয়াল চ্যানেলে। সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন

Comentarios


বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page