top of page

ছাগল তাড়াতে দেরি হওয়ায় ছাত্রকে মারধর! বিক্ষোভ পড়ুয়াদের

স্কুলের মাঠে ঢুকে পড়েছিল ছাগল। সেই ছাগলকে তাড়াতে বলা হয়েছিল এক ষষ্ঠ শ্রেণির পড়ুয়াকে। মাঠ থেকে ছাগল তাড়াতে দেরি হওয়ায় ওই ছাত্রকে মারধর করার অভিযোগ স্কুলের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে। বিষয়টি জানাজানি হতেই বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন মাদ্রাসার ছাত্রছাত্রীরা। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে পুলিশ। আজ দুপুরে ঘটনাটি ঘটেছে রতুয়া-২ নম্বর ব্লকের অন্তর্গত মহারাজনগর হাই মাদ্রাসায়।


আক্রান্ত ছাত্রের নাম আশরাফুল হক। আশরাফুল মহারাজনগর হাই মাদ্রাসার ষষ্ঠ শ্রেণিতে পাঠরত। জানা গিয়েছে, আজ দুপুরে হাই মাদ্রাসার নিরাপত্তারক্ষীর দৃষ্টি এড়িয়ে বিদ্যালয় চত্বরে একটি ছাগল ঢুকে পড়ে। আশরাফুলকে ওই ছাগল তাড়ানোর নির্দেশ দেন বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক আতাউর রহমান। অভিযোগ, সেই ছাগল তাড়াতে দেরি হওয়ায় বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আশরাফুলকে মারধর করে। বিষয়টি জানতে পেরে ক্ষোভে ফেটে পড়ে অন্যান্য পড়ুয়ারা।


স্কুল চত্বরে শুরু হয় বিক্ষোভ। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছয় পুখুরিয়া থানার পুলিশ ও ব্লকের যুগ্ম বিডিও কল্যাণ আশিস দাস। আশরাফুল হককে চিকিৎসার জন্য পাঠিয়ে ক্ষিপ্ত পড়ুয়াকে শান্ত করে পুলিশ।

এদিকে, সমস্ত অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে দাবি করেন বিদ্যালয়ে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক আতাউর রহমান। তিনি বলেন, তিনি ওই ছাত্রকে শুধু ছাগল তাড়াতে বলেছিলেন। তাকে মারধর করেননি তিনি।



আমাদের মালদা এখন টেলিগ্রামেও। জেলার প্রতিদিনের নিউজ পড়ুন আমাদের অফিসিয়াল চ্যানেলে। সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন

বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page