top of page

অর্ধেক বেতন! কর্মবিরতিতে চাঁচল সুপারস্পেশালিটির অস্থায়ী কর্মীরা

সঠিক সময়ে সঠিক বেতন না মেলার অভিযোগ তুলে কর্মবিরতিতে সামিল হলেন চাঁচল সুপারস্পেশালিটি হাসপাতালের অস্থায়ী কর্মীরা। অস্থায়ী কর্মীদের কর্মবিরতির জন্য চিকিৎসা পরিসেবার ওপরেও প্রভাব পড়েছে।


জানা গিয়েছে, চাঁচল সুপারস্পেশালিটি হাসপাতালে একটি বেসরকারি সংস্থার অধীনে ১৭০ জন অস্থায়ী কর্মী কাজ করছেন। এর আগেও ওই সংস্থার বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ এসেছিলেন অস্থায়ী কর্মীরা। আজ ফের বেতন সংক্রান্ত অভিযোগে কর্মবিরতিতে সামিল হলেন তাঁরা। অস্থায়ী কর্মীদের দাবি, মাসে ২৬ দিন কাজ করলে সাড়ে সাত হাজার বেতন দেওয়ার কথা। কিন্তু তাঁদের ঠিক মতো বেতন দেওয়া হচ্ছে না। এমাসে অর্ধেক বেতন দেওয়া হয়েছে। কেন কম বেতন দেওয়া হচ্ছে, তা জানতে চাওয়া হলেও কোনও উত্তর দিচ্ছে না সংস্থার কর্তারা। প্রতিবাদ করলে কর্মীদের কখনও শোকজ কখনও বহিষ্কার করা হচ্ছে। এরই প্রতিবাদে অস্থায়ী কর্মীদের এই আন্দোলন।



হাসপাতাল সুপার কুমারেশ ঘোষ জানান, অস্থায়ী কর্মীদের পুরো বিষয় দায়িত্বপ্রাপ্ত ঠিকাদার সংস্থার অধীনে। অস্থায়ী কর্মীদের দাবি নিয়ে তাঁদের কিছু করার নেই। তবে বিষয়টি তাঁরা ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নজরে আনবেন।




আমাদের মালদা এখন টেলিগ্রামেও। জেলার প্রতিদিনের নিউজ পড়ুন আমাদের অফিসিয়াল চ্যানেলে। সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন

বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page