top of page

ধার চাহিয়া লজ্জা দিবেন না, পরিণতি মর্মান্তিক

ধারে বিড়ি না দেওয়ায় এক মুদি ব্যবসায়ী ও তাঁর স্ত্রীকে রাতের অন্ধকারে পুড়িয়ে খুনের অভিযোগ উঠল প্রতিবেশীর বিরুদ্ধে। শুক্রবার গভীর রাতে রতুয়া থানার বাহারাল পঞ্চায়েতের পরানপুর গ্রামে ঘটনাটি ঘটেছে। ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। তদন্তে নেমেছে রতুয়া থানার পুলিশ। ঘটনার পর থেকে পলাতক অভিযুক্ত।



মৃত দম্পতির নাম মহম্মদ কুসুমুদ্দিন (৬০) ও মহেলা বিবি (৫৫)। তাঁদের ৯ ছেলেমেয়ে। বাড়ি রতুয়া থানার বাহারাল পঞ্চায়েতের পরানপুর গ্রামে। কুসুমুদ্দিন সাহেব বাড়িতে মুদির দোকান করেন। জানা গিয়েছে, শুক্রবার রাতে দোকানে বসেছিলেন কুসুমুদ্দিন। সেই সময় প্রতিবেশী জাইলুন মিঞাঁ দোকানে এসে ধারে বিড়ি চায়। কিন্তু আগে অনেক টাকা ধার থাকায় বাকি দিতে রাজি হননি কুসুমুদ্দিন। এই নিয়ে দুই জনের মধ্যে বিবাদ হয়। স্থানীয় ও পরিবারের লোকেরা বিবাদ থামায়। অভিযোগ, গভীর রাতে কুসুমুদ্দিন ও তাঁর স্ত্রী বাড়ির বারান্দায় ঘুমিয়ে ছিলেন। অভিযোগ, সেই সময় জাইলুন মিঞাঁ ঘুমন্ত দুই জনের শরীরে পেট্রোল ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়। অগ্নিদগ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় মহেলা বিবির। পরিবারের লোকেরা কুসুমুদ্দিনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় মালদা মেডিকেল কলেজে ভর্তি করলে সেখানে মৃত্যু হয় তাঁরও। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে রতুয়া থানার পুলিশ। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত পলাতক।

Comentarios

No se pudieron cargar los comentarios
Parece que hubo un problema técnico. Intenta volver a conectarte o actualiza la página.

বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page