top of page

ইলেকট্রিক বিল দিতে আসা কর্মীদের ঘিরে বিক্ষোভ ইংরেজবাজারে

করোনাভাইরাসের মোকাবিলায় লকডাউন জারি রয়েছে দেশজুড়ে। লকডাউনের জেরে আর্থিক অনটনে পড়েছে জেলাবাসী। এরই মাঝে বিদ্যুতের বিল আসায় সমস্যায় পড়েছেন ইংরেজবাজারের কোতোয়ালির নিমাইসরা এলাকার বাসিন্দারা। বিদ্যুতের বিল দিতে এসে স্থানীয় মানুষদের বিক্ষোভের মুখে পড়েন বিদ্যুৎ দফতরের কর্মীরা।



আজ দুপুরে বিদ্যুৎ দফতরের এক কর্মী কোতোয়ালির নিমাইসরা এলাকার বাসিন্দাদের বিদ্যুতের বিল দিতে আসেন। সেই সময়ে স্থানীয়রা ওই ব্যক্তিকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখাতে থাকে। স্থানীয় এক বাসিন্দা গীতা রবিদাস বলেন, লকডাউনে তাঁরা কোনওরকমে খেয়েদেয়ে দিন কাটাচ্ছেন। এরই মধ্যে আজ তাঁর বাড়িতে বিদ্যুৎ দফতর থেকে বিল পাঠানো হয়েছে। এই পরিস্থিতিতে সমস্যায় পড়তে হচ্ছে তাঁদের। একই বক্তব্য এলাকার এক বাসিন্দা, টোটোচালক মিঠু রায়ের। তিনি বলেন, আজ বিদ্যুৎ দফতরের কর্মী এসে তাঁর হাতে ২ হাজার ১৪ টাকার বিদ্যুতের বিল দিয়ে গিয়েছে। লকডাউন থাকায় তিনি টোটো চালাতে পারছেন না। কোনোরকমে খাবার জুটছে তাঁর পরিবারের। এই পরিস্থিতিতে বিদ্যুতের বিল তাঁরা কোথা থেকে দেবেন।



ঘটনাপ্রসঙ্গে তৃণমূল সুপ্রিমোর দিকেই তোপ দেগেছেন বিজেপি মহিলা যুব মোর্চার সভাপতি সুতপা মুখার্জি। তিনি বলেন, এই পরিস্থিতিতেও তৃণমূল রাজনীতি করছে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় মুখে এক কথা বলছেন। কাজে ঠিক উলটো করছেন। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশে সমস্ত ঘটনা ঘটেছে। তাঁদের দাবি, অবিলম্বে সমস্ত বিদ্যুতের বিল স্থগিত রাখতে হবে।


মালদা জেলার খবর ও বিনোদনের লেটেস্ট ভিডিয়ো আপডেট পেতে ক্লিক করুন

বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page