top of page

দেখা নেই শিক্ষকদের, এদিক ওদিক ছুটে বেড়াচ্ছে পড়ুয়ারা

পড়ুয়া প্রার্থনার লাইনে দাঁড়িয়ে শিক্ষকদের অপেক্ষা করছে। দেখা নেই শিক্ষকদের। বাচ্চাদের অনেকে আবার বিরক্ত হয়ে এদিক-ওদিক ছুটোছুটি করে বেড়াচ্ছে। অবশেষে ১০টা ৫৮ মিনিটে স্কুলে এসে বাচ্চাদের প্রার্থনা করালেন এক শিক্ষিকা। তখনও দেখা নেই বাকি শিক্ষকদের। বেশ খানিকক্ষণ পর একে একে স্কুলে এলেন ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক সহ অন্যান্যরা। বুধবার এমন ছবি ধরা পড়েছে মালদা শহরের মালদা গার্লস জুনিয়র বেসিক বিদ্যালয়ে। অভিভাবকদের অভিযোগ প্রায় প্রতিদিনই শিক্ষকরা নিয়মমতো স্কুলে আসেন না।


স্কুলের এক শিক্ষিকা প্রজ্ঞা শেঠ জানান, শিক্ষকরা প্রতিদিনই সময় মতো স্কুলে আসেন। আজ যানজটের কারণে স্কুলে আসতে খানিকটা দেরি হয়েছে। বাচ্চাদের প্রার্থনাও খানিকটা দেরিতে হয়েছে।



ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা বুলি সরকার জানান,

আমার শরীর ভালো না থাকায় স্কুলে আসতে একটু দেরি হয়েছে। তাছাড়া আজ বাচ্চাদের মিড-ডে মিলের বাজারও করার ছিল। অভিভাবকরা যে অভিযোগ করছেন তা সঠিক নয়। শিক্ষকরা সময় মতো স্কুলে আসেন। আজ কোনোকারণে হয়তো আসতে দেরি হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে শিক্ষকদের সঙ্গে আলোচনা করব।

আমাদের মালদা এখন টেলিগ্রামেও। জেলার প্রতিদিনের নিউজ পড়ুন আমাদের অফিসিয়াল চ্যানেলে। সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন

বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page