top of page

মারধর করে দল ভাঙানোর অভিযোগ কংগ্রেসের বিরুদ্ধে

পঞ্চায়েতের ক্ষমতা দখলকে কেন্দ্র করে দুই তৃণমূল কংগ্রেস কর্মীকে বেধড়ক মারধরের অভিযোগ উঠল কংগ্রেস কর্মীদের বিরুদ্ধে। আক্রান্ত তৃণমূল কংগ্রেস কর্মীরা বর্তমানে মানিকচক গ্রামীণ হাসপাতাল ও মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। মঙ্গলবার রাতে মানিকচক থানার গোপালপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের বালুটোলা গ্রামে ঘটনাটি ঘটেছে। অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে মানিকচক থানায়। পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে।


পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, আহত তৃণমূল কংগ্রেস কর্মীদের নাম, ইব্রাহিম আলি (২৩) ও আকতারুল হক (৩০)। সম্পর্কে এই ডজন কাকা ও ভাইপো। অভিযুক্ত কংগ্রেস কর্মী জিয়াউল শেখ, মনিরুল শেখ, গিয়াসউদ্দিন শেখ সহ ৩০ জনের বিরুদ্ধে মানিকচক থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। জানা গিয়েছে, গোপালপুর গ্রাম পঞ্চায়েতে মোট ১০টি আসন রয়েছে। সম্প্রতি পঞ্চায়েত নির্বাচনে পাঁচটি আসন তৃণমূল কংগ্রেস এবং বাকি পাঁচটি দখল করেছে কংগ্রেস। এই ফলাফলের কারণে গোপালপুর গ্রাম পঞ্চায়েত ত্রিশঙ্কু হয়েছে।

বর্তমান গ্রাম পঞ্চায়েত কারা দখল করবে এ নিয়ে বেশ কিছুদিন ধরেই গ্রামবাসীদের মধ্যে জল্পনা চলছে। আক্রান্তদের অভিযোগ, তারা ৫ জন জয়ী তৃণমূল প্রার্থীকে নিজেদের ছত্রছায়ায় রাখা সত্ত্বেও তাদের মধ্যে থেকে দল ভাঙানোর চেষ্টা করছে কংগ্রেস। এই ঘটনার জেরে একলা পেয়ে তাদের উপর হামলার চালানোর অভিযোগ। আহত অবস্থায় দুইজনকে প্রথমে মানিকচক গ্রামীণ হাসপাতালে ভর্তি করে আহতদের পরিজনেরা। পরে ইব্রাহিম আলিকে সেখান থেকে মালদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। বর্তমানে সেখানেই তিনি চিকিৎসাধীন। হামলার ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে মানিকচক থানার পুলিশ।


আমাদের মালদা এখন টেলিগ্রামেও। জেলার প্রতিদিনের নিউজ পড়ুন আমাদের অফিসিয়াল চ্যানেলে। সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন

ভিডিয়োঃ কৃতাঙ্ক

বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page