top of page

যুদ্ধ পরিস্থিতিতে আটকে ছেলে, চিন্তায় দিন কাটছে পরিবারের

যুদ্ধ পরিস্থিতিতে ছেলের সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারছেন না পরিবারের লোকজন। ছেলে কি পরিস্থিতিতে রয়েছে তা ভেবেই আঁতকে উঠছেন সকলে। ছেলের ঘরে ফেরার আশা নিয়ে দিন কাটাচ্ছেন দম্পতি।


হরিশ্চন্দ্রপুরের মজ্জিড পাড়ার বাসিন্দা মোহম্মদ মোমিনউদ্দিন। তাঁর বড়ো ছেলে মাসুম হামিদ পারভেজ ডাক্তার হওয়ার স্বপ্ন নিয়ে পাড়ি দিয়েছিল ইউক্রেনের কিভে। সেখানে এখন সে মেডিকেলের চতুর্থ বর্ষের ছাত্র। পরিবারের দাবি, যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর থেকে মাসুমের সঙ্গে ঠিকমতো যোগাযোগ করা যাচ্ছে না। কিভে নেটওয়ার্কের সমস্যার কারণেই ছেলের পরিস্থিতি জানা যাচ্ছে না। মোমিনউদ্দিন সাহেব জানান, তাঁর ছেলে মাসুম মেডিকেলের চতুর্থ বর্ষের ছাত্র। ইউক্রেনের কিভ শহরে পড়াশোনা করে সে। যুদ্ধ ঘোষণা হওয়ার পরে বন্ধুদের সঙ্গে তাঁর ছেলে বাঙ্কারে আশ্রয় নিয়েছিল। কিন্তু সময় গড়ানোর সঙ্গে সঙ্গে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। বর্তমানে ছেলে কি পরিস্থিতিতে রয়েছে তা তাঁদের জানা নেই। ছেলে খাবার, পানীয় পাচ্ছে কিনা তাও জানেন না তাঁরা। তাঁরা চান ছেলে দ্রুত ঘরে ফিরে আসুক।



মাসুমের মা হামেদা খাতুন জানান, যুদ্ধে এক ভারতীয়ের মৃত্যুর ঘটনা শোনার পর থেকে আতঙ্কে রয়েছেন তাঁরা। ছেলেকে ঘরে ফিরিয়ে আনতে প্রার্থনা করছেন তাঁরা।






আমাদের মালদা এখন টেলিগ্রামেও। জেলার প্রতিদিনের নিউজ পড়ুন আমাদের অফিসিয়াল চ্যানেলে। সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন

Comentários


বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page