top of page

মেডিকেল কলেজের পরিসেবায় সন্তুষ্ট নন খগেন মুর্মু

ফের মালদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের পরিকাঠামো ও পরিসেবা নিয়ে প্রশ্ন তুললেন উত্তর মালদার বিজেপির সাংসদ। এনিয়ে মেডিকেল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনায় বসার কথাও শোনা গিয়েছে তাঁর মুখে।


গত ১৭ জুন কাঞ্চনজঙ্ঘা এক্সপ্রেসের দুর্ঘটনায় প্রাণ হারিয়েছে ছয় বছরের স্নেহা মণ্ডল। তার মা-বাবা এখনও মালদা মেডিকেল কলেজে চিকিৎসাধীন। আজ দুপুরে ওই দম্পতির সঙ্গে দেখা করতে যান সাংসদ খগেন মুর্মু। শুধু ওই পরিবার নন, সার্জিক্যাল বিভাগের একাধিক রোগীর সঙ্গে চিকিৎসা পরিসেবা নিয়ে কথা বলেন তিনি। পরে সংবাদমাধ্যমের সামনে মেডিকেলের পরিকাঠামো ও পরিসেবা নিয়ে ক্ষোভ উগড়ে দেন তিনি।



তিনি বলেন, কাঞ্চনজঙ্ঘা এক্সপ্রেসের দুর্ঘটনায় ছয় বছরের এক বাচ্চার মৃত্যু হয়েছে। তার বাবা-মা এখনও মালদা মেডিকেল কলেজে চিকিৎসাধীন। আজ ওই পরিবারের সঙ্গে দেখা করলাম। পাশাপাশি বহু রোগীর সঙ্গেও কথা বলেছি। কেন্দ্রীয় সরকার মালদা মেডিকেল কলেজের জন্য দেড়শো কোটি টাকা দিয়েছে। কিন্তু সেই টাকার ব্যবহার ঠিকমতো হয়নি। এখানে এখনও পরিকাঠামোগত সমস্যা রয়েছে। বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা বেশিরভাগ সময় ওয়ার্ডে আসছেন না। এখানে ইনটার্নদের দিয়ে পরিসেবা দেওয়া হচ্ছে। এসব নিয়ে মালদা মেডিকেল কলেজ কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলব।


আমাদের মালদা এখন টেলিগ্রামেও। জেলার প্রতিদিনের নিউজ পড়ুন আমাদের অফিসিয়াল চ্যানেলে। সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন

Kommentare


বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page