top of page

হাইকোর্টের নির্দেশে চাকরি ফিরে পেলেন মালদার যুবক

অবশেষে চাকরি ফিরে পেলেন মালদার মিরাজ শেখ। হাইকোর্টের নির্দেশে হারানো চাকরি ফিরে পেয়েছেন ইংরেজবাজারের কাজীগ্রাম গ্রামপঞ্চায়েতের এই যুবক।


জানা গিয়েছে, ২০১৪ সালে প্রাথমিক শিক্ষক পদে আবেদন করেন মিরাজ। লিখিত পরীক্ষা ও ইন্টারভিউয়ের পর ২০২১ সালের ডিসেম্বর মাসে মিরাজ মুর্শিদাবাদ জেলার রঘুনাথগঞ্জের পুথিয়া প্রাথমিক বিদ্যালয়ে চাকরিতে যোগ দেন। পরের বছর জানুয়ারি মাস শেষ হওয়ার পরেও তাঁর অ্যাকাউন্টে বেতন না আসায় শিক্ষা সংসদে যোগাযোগ করে তিনি জানতে পারেন তাঁর চাকরি কেড়ে নেওয়া হয়েছে। এরপরেই গত মে মাসে চাকরি ফেরতের দাবি নিয়ে হাইকোর্টের দ্বারস্থ হন তিনি। গতকাল বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় চাকরি দ্রুত ফিরিয়ে দেওয়া এবং পুনর্বহালের জন্য রাজ্য শিক্ষা দফতর ও মুর্শিদাবাদ জেলা প্রাথমিক শিক্ষা সংসদকে নির্দেশ দিয়েছেন।



মিরাজ জানান,

বেতন না পাওয়ায় তিনি জেলা প্রাথমিক শিক্ষা সংসদে যোগাযোগ করেন। তাঁকে জানানো হয়, তাঁর স্নাতক স্তরের প্রাপ্ত নম্বর ঠিক থাকলেও অনার্স সাবজেক্টের নম্বর প্রয়োজনের তুলনায় কম রয়েছে। ৩১ মার্চ তাঁকে লিখিতভাবে জানিয়ে দেওয়া হয়, তাঁর চাকরি প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়েছে। মিরাজ জানান, তিনি বিএড করেছেন। নম্বর কম থাকলে অনার্স নম্বরের ভিত্তিতে তিনি কীভাবে বিএড করলেন? এরপরেই নিজের চাকরি ফেরতের দাবিতে হাইকোর্টের দ্বারস্থ হন তিনি। গতকাল হাইকোর্ট চাকরি ফিরিয়ে দেওয়া ও দ্রুত পুনর্বহালের নির্দেশ দিয়েছে।



আমাদের মালদা এখন টেলিগ্রামেও। জেলার প্রতিদিনের নিউজ পড়ুন আমাদের অফিসিয়াল চ্যানেলে। সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন

বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page