top of page

প্রেমিক যুগলের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার, চাঞ্চল্য চাঁচলে

প্রেমিক-প্রেমিকার ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধারের ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে চাঁচলের ধানগাড়া বিষণপুর গ্রামপঞ্চায়েত এলাকায়৷ মৃতদেহ দুটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মালদা মেডিকেল কলেজ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে চাঁচল থানার পুলিশ।


মৃত প্রেমিক-প্রেমিকার নাম শেখ সাইফুদ্দিন (২৬) ও নায়েমা খাতুন (১৬)। সাইফুদ্দিনের বাড়ি ধানগাড়া বিষণপুর গ্রামপঞ্চায়েতের রণঘাট গ্রামে। নায়েমা পাশের ক্ষেমপুর গ্রামপঞ্চায়েতের পরাণপুর গ্রামের বাসিন্দা৷ পরিবার ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, সাইফুদ্দিন বিবাহিত। তাঁর আড়াই বছরের একটি ছেলেও রয়েছে। তিনি ভিনরাজ্যে পরিযায়ী শ্রমিকের কাজ করতেন৷ কয়েকদিন আগেই বাড়ি ফিরে এসেছেন তিনি৷ সইফুদ্দিনের পরিবারের দাবি, বাড়িতে স্ত্রী থাকা সত্ত্বেও কীভাবে সে অন্য মেয়ের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্কে জড়াল তা বুঝে উঠতে পারছেন না তাঁরা।



এদিকে নায়েমার পরিবারের দাবি, নায়েমাকে খুন করা হয়েছে৷ নায়েমার সঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় যে যুবকের মৃতদেহ উদ্ধার হয়েছে তাকে তাঁরা চেনেন না। নায়েমার বুকে ছুরির আঘাত দেখতে পেয়েছেন তাঁরা। তাঁদের ধারনা, ওই যুবকের পরিবারের লোকজন এই কাজ করেছে।




প্রাথমিক তদন্তের পর পুলিশের অনুমান, মানসিক অবসাদের কারণে দু’জনে আত্মহত্যার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন। মৃতদেহটি ময়নাতদন্তে পাঠিয়ে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।


আমাদের মালদা এখন টেলিগ্রামেও। জেলার প্রতিদিনের নিউজ পড়ুন আমাদের অফিসিয়াল চ্যানেলে। সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন

বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page