top of page

গৌড় এক্সপ্রেসের এসি টু টায়ারে লুঠতরাজ

শুক্রবার রাতে শিয়ালদহ থেকে মালদার পথে আসছিল গৌড় এক্সপ্রেস। গভীর রাত তখন, বর্ধমান ও বোলপুর স্টেশনের মাঝে ট্রেনের এসি কামরায় উঠে পড়ে একদল দুষ্কৃতী। যাত্রীদের কাছ থেকে গয়না, মোবাইল ফোন, টাকা ইত্যাদি লুঠ করতে শুরু করে সেই দুষ্কৃতীর দল। ওই ট্রেনেই এদিন সফর করছিলেন উত্তর মালদার বিজেপি’র সাংসদ খগেন মুর্মু। কী করে এসি কামরার নিরাপত্তা ভেঙে এই দুষ্কৃতীর দল ট্রেনে উঠে পড়ল তা নিয়ে এদিন সকালে ধুন্ধুমার কাণ্ড মালদা টাউন স্টেশনে।


Gour Express

অভিযোগকারী মালদার বাসিন্দা ইন্দ্রনাথ সিনহা। স্ত্রী পুত্র সহ গতকাল রাতে তিনি কলকাতা থেকে মালদা আসছিলেন ট্রেনে। তাঁরা গৌড় এক্সপ্রেসের এসি টু টায়ারের যাত্রী ছিলেন এদিন। একই ট্রেনে মালদা ফিরছিলেন উত্তর মালদার বিজেপি’র সাংসদ খগেন মুর্মুও। রাত দুটোর একটু পরেই ট্রেন বর্ধমান স্টেশন ছেড়ে যখন বোলপুর স্টেশনের দিকে, সেই সময় একদল দুষ্কৃতী ট্রেনে উঠে পড়ে লুঠতরাজ ও মারধর করতে শুরু করে। ট্রেনে সাংসদের নিরাপত্তা রক্ষীরা থাকা সত্ত্বেও এই ঘটনা ঘটায় তাঁরা ব্যাপক ক্ষোভ প্রকাশ করেন।



তাঁরা আরও জানান, সাংসদের নিরাপত্তা রক্ষীদের কাছে বারবার বলা সত্ত্বেও সেইসময় কোনও সাহায্য পাওয়া যায় নি। এই ঘটনায় রামপুরহাট ও মালদা জিআরপি থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে৷ মালদা জিআরপি থানার আইসি জানালেন, এই ঘটনায় মালদার সানিপার্কের বাসিন্দা দেবলিনা সিনহা আহত হয়েছেন, তাঁকে মারধর করা হয়েছে। এছাড়া আরেক যাত্রী সৈকত ভট্টাচার্যের মোবাইল ফোন ও সাড়ে আট হাজার টাকা লুঠ হয়। আরও দু-একজন যাত্রীর ব্যাগ চুরি হয়েছে। লুঠতরাজ করার পর এই দলটি বোলপুর স্টেশনের আগে ট্রেনের চেইন টেনে নেমে যায়। ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছেে।


বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page