top of page

উচ্চমাধ্যমিকে অনুত্তীর্ণ ছাত্রী আত্মঘাতী

উচ্চমাধ্যমিকে ইংরেজি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে না পারায় গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা পড়ুয়ার। ঘটনাটি ঘটেছে হবিবপুরের ডুবাপাড়া এলাকায়। মৃতদেহটি ময়নাতদন্তে পাঠিয়ে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।


মৃত ছাত্রীর নাম শম্পা হালদার (১৭)। শম্পা হবিবপুরের আরএনরায় গার্লস স্কুলের উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার্থী। এবছর আরএনরায় স্কুল থেকে ১৮০ জন উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা দিয়েছিল। তার মধ্যে উত্তীর্ণ হন ৮০ জন। এরপরই পাশ করানোর দাবিতে মালদা-বুলবুলচণ্ডী রাজ্য সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করে ওই স্কুলের কিছু ছাত্রী। কয়েকদিন আগে জেলা শিক্ষা দফতর ঘেরাও করেও বিক্ষোভ দেখাতে দেখা যায় তাদের। সেই বিক্ষোভে সামিল ছিল শম্পা হালদার বলে স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে। আজ সকালে ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার হয় তার।



মৃত ছাত্রীর বাবা কুশি হালদার জানান, পরীক্ষায় ফেল করায় কিছুদিন ধরেই মেয়ের মধ্যে পরিবর্তন দেখা যাচ্ছিল। এরই মধ্যে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করে মেয়ে। অতিরিক্ত পুলিশসুপার অমিত কুমার শাহ জানান, প্রাথমিক তদন্তে অনুমান করা হচ্ছে পরীক্ষায় উত্তীর্ণ না হওয়ার কারণে ওই ছাত্রী আত্মহত্যা করেছে। মৃতদেহটি ময়নাতদন্তে পাঠিয়ে ঘটনার তদন্ত শুরু করা হয়েছে।




আমাদের মালদা এখন টেলিগ্রামেও। জেলার প্রতিদিনের নিউজ পড়ুন আমাদের অফিসিয়াল চ্যানেলে। সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন

Commentaires


বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page