পাচারের নেক নজরে মালদা

পাচারের নেক নজরে মালদা

ঠিক যেন হিন্দি সিনেমার দৃশ্য৷কাঁটাতারের ওপার থেকে উড়ে আসছে প্যাকেট৷আর এপারে থাকা লোকগুলো ক্যাচ লুফে রাতের অন্ধকারে গা-ঢাকা দিচ্ছে সীমান্ত গ্রামে৷কখনো কখনো বিএসএফ জওয়ানদের তাড়া খেয়ে প্যাকেট ফেলেই ছুটতে হচ্ছে৷তবু পরোয়া নেই৷নজরদারির ফাঁক পেলেই প্যাকেট পাচারের কৌশলী পদক্ষেপ৷উড়তা পাঞ্জাব-এর উড়ন্ত প্যাকেটে ছিল মাদক৷কিন্তু এখানে সেসব নয়৷প্যাকেট বন্দি হয়ে সীমান্ত পার থেকে উড়ে আসছে তোড়া তোড়া টাকা৷তবে পুরোটাই জাল৷হ্যাঁ, এভাবেই কালিয়াচক সীমান্তকে সফট্ টার্গেট করেছে জাল টাকার কারবারিরা৷ এবছরেই অন্তত দুবার এই ঘটনার প্রমাণ পেয়েছে বিএসএফ৷ ভারতের অর্থনীতিকে দুর্বল করতে মরিয়া বিদেশি শক্তি৷ আর একাজে সফল হতে হলে ভারতের মাটিতে জাল নোটের সাপ্লাই লাইনটা ঠিক রাখতে হবে৷বাংলাদেশি দুষ্কৃতীদের পাশাপাশি এদেশেও নিজেদের এজেন্ট ছড়িয়ে রেখেছে ভাইদের ‘ডি’ কোম্পানি৷ তবে সামনে মাফিয়া ডনের ছায়া থাকলেও, জাল নোটের জাল ছড়ানোর ব্লু-প্রিন্টটা আদতে পাক গুপ্তচর সংস্থা আইএসআই-এর৷তবে বিএসএফ ও পুলিশের কড়া নজরদারির ফলে বাজারে ছড়ানোর আগেই জাল টাকার মারণাস্ত্র উদ্ধার করা সম্ভব হচ্ছে৷



মালদার ভৌগোলিক অবস্থান এই জেলাকে পাচারকারীদের নেক নজরে রেখেছে৷তা সে জাল নোটের কারবারই হোক বা গোরু-মোষের পাচার৷মালদার মাটিকে ব্যবহার করতে চায় এরা সকলেই৷

সাম্প্রতিক পরিসংখ্যান ঘাঁটলে এটা আরও স্পষ্ট হয়ে যাবে৷মালদা হয়ে বাংলাদেশে গোরু এমনকি মোষ পাচারের ঘটনা বহুগুণ বেড়ে গিয়েছে এবছরে৷গোরু পাচারের নিত্যনতুন কৌশল ফাঁদছে এরা৷আগে সীমান্ত এলাকায় গোরু পাচার চলত বাংলাদেশে৷এখন রীতিমতো শহরের বুকেই দাপাচ্ছে গোরু পাচারকারীরা৷কিন্তু কীভাবে?

একাজে পিক আপ ভ্যান বা ছোটো লরিকে ব্যবহার করছে গোরু পাচারকারীরা৷গাড়ির মধ্যে গোরু পুরে চারিদিকে ঢেকে দেওয়া হচ্ছে৷তারপর সেই গাড়ি মালদা ও পুরাতন মালদা শহরের বুক চিরে ছুটছে সীমান্তের উদ্দেশ্যে৷আমজনতার বোঝার সাধ্যিই নেই যে, ওইসব গাড়ির ভেতর পাচারের জন্য গোরু মজুত রয়েছে৷কিন্তু দুর্বৃত্তদের ওপর কড়া নজর রয়েছে পুলিশের৷তাই ফন্দি যতই আঁটুক না কেন, পুলিশের পাতা জালে ধরা দিতেই হচ্ছে তাদের৷


৬ তারিখ রাতে সাহাপুরের সেতু মোড়ে অভিযান চালিয়ে রীতিমতো গোরু পাচারকারীদের কনভয় আটক করে মালদা থানার পুলিশ৷পরপর পাঁচটি পিক আপ ভ্যান৷আর তাতে গাদাগাদি করে রাখা ৪৪টি গোরু৷শহর পেরিয়ে সেতু মোড়ে আসতেই ওঁত পেতে থাকা পুলিশ ৫ পাচারকারী সহ গোরু ভরতি গাড়িগুলি ধরে ফেলে৷ ঠিক পরের দিনই বামনগোলা থানার পুলিশের জালে ধরা দেয় ৩ দুষ্কৃতী৷১২ মাইল এলাকা থেকে এদের পাকড়াও করা হয়৷বাংলাদেশে পাচারের জন্য ট্রাকে বোঝাই করে গোরু নিয়ে যাচ্ছিল এই পাচারকারীরা৷তবে ট্রাক সহ ২৪টি গোরুই ধরে ফেলে পুলিশ৷

৬,৭-এর পর ৮ তারিখও বাংলাদেশে গোরু পাচারের মরিয়া চেষ্টা করে দুষ্কৃতীরা৷৫টি পিক আপ ভ্যানে চাপিয়ে ২০টি গোরু নিয়ে যাচ্ছিল পাচারকারীরা৷তবে পুরাতন মালদায় রায়পুর ঘাট দিয়ে পাচারের আগেই বমাল দুষ্কৃতীদের ধরে ফেলে পুলিশ৷গোরু পাচারে ধৃতদের অধিকাংশেরই বাড়ি কালিয়াচকে৷তবে ইংরেজবাজার ও পুরাতন মালদার বাসিন্দাও রয়েছে পাচারকারীদের দলে৷

পুলিশের বক্তব্য, চেষ্টা যতই করুক, কোনো পাচারকারীকে রেয়াত করা হবে না৷কড়া নজর রয়েছে৷ধরা ঠিক পড়বেই৷তবে পুলিশের পাশাপাশি পাচার রুখতে তৎপর হচ্ছে সচেতন আমআদমিও৷তারই প্রমাণ মিলল ইংরেজবাজারের কেষ্টপুরে৷২৯ অগস্ট রাতে কেষ্টপুরে কাঁটাতারের পাশে জড়ো হয়েছিল পাচারকারীরা৷তবে বাংলাদেশে পাচারের আগেই তাদের দেখে ফেলে গ্রামবাসীরা৷পাচার রুখতে দুষ্কৃতীদের তাড়াও করে তারা৷তবে কিছু গোরু নিয়ে বাংলাদেশে পালিয়ে যেতে সক্ষম হয় পাচারকারীরা৷যদিও ১৫টি গোরু ও মোষ ফেলে পালায় দুষ্কৃতীরা৷

পরিসংখ্যান দেখলে বোঝা যাচ্ছে, বাংলাদেশে গোরু পাচারের মরিয়া চেষ্টা চালাচ্ছে দুষ্কৃতীরা৷তাই গাড়িতে চাপিয়ে শহর পেরিয়ে গ্রাম ছাড়িয়ে সীমান্তের দিকে ছুটছে পাচারকারীদের দল৷ তবে শেষরক্ষা হচ্ছে না৷ঠাঁই হচ্ছে শ্রীঘরেই৷


#IndiaBangladesh #CattleTrafficking

হেডলাইন

প্রতিবেদন

মহানন্দার উজান স্রোতে ভবানীপুরে অশনির ঘণ্টা বাজছে

ফি বছর বর্ষায় বেড়ে যায় মহানন্দার জলস্তর। স্রোতের আওয়াজ ঘুমন্ত গ্রামবাসীদের কানের পর্দায় যেন ধাক্কা দেয়৷ এবারও বেড়েছে মহানন্দার জল৷ খানিকটা..

বিজ্ঞাপন

ফলো করুন
  • Facebook
  • Instagram
  • Twitter
  • YouTube
  • Pinterest

সব খবর ইনবক্সে!

প্রতিদিন খবরের আপডেট পেতে সাবস্ক্রাইব করুন

Aamader Malda Worldwide, the only media of your hometown and its thoughts. Here you can share and express your views and thoughts and you'll get here the essence of MALDAIYA CULT...

You can reach us via email or phone.  P +91 3512-260260  E response@aamadermalda.in

  • Facebook
  • Twitter
  • YouTube
  • Pinterest
  • Instagram
  • RSS

Copyright © 2020 Aamader Malda. All Rights Reserved.