top of page

উত্তরবঙ্গ কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল! সরকারের উন্নয়ন কর্মসূচি তুলে ধরে বিরোধিতা তৃণমূলের

উত্তরবঙ্গকে আলাদা কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হিসেবে ঘোষণা করার দাবি তুলেছে বিজেপি। তারই পরিপ্রেক্ষিতে আজ সাংবাদিক বৈঠক করে গত ১০ বছরে তৃণমূল সরকারের উন্নয়ন তুলে ধরল জেলা তৃণমূল নেতৃত্ব।


আজ দুপুরে মালদা প্রেস কর্নারে সাংবাদিক বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের মন্ত্রী সাবিনা ইয়াসমিন, জেলা তৃণমূল সভানেত্রী মৌসম নূর জেলা তৃণমূলের চেয়ারম্যান কৃষ্ণেন্দুনারায়ণ চৌধুরি সহ অন্যান্যরা। মৌসম জানান, বিজেপির পক্ষ থেকে উত্তরবঙ্গকে আলাদা রাজ্য কিংবা কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হিসেবে ঘোষণা করার দাবি উঠছে। এটা বিজেপির ডিভাইড অ্যান্ড রুল পলিসি। আমাদের মুখ্যমন্ত্রী এই ধরণের নোংরা রাজনীতি তিনি করতে দেবেন না। এই ইশ্যু নিয়ে বিজেপির নিজেদের মধ্যেই দ্বন্দ্ব রয়েছে। যদি এভাবে উন্নয়ন হত তবে নিশ্চয় বিজেপি বিধায়করা একমত থাকতেন। উত্তরবঙ্গ নিয়ে বিজেপির যদি এত চিন্তাভাবনা ছিল, তবে এতদিন উত্তরবঙ্গের উন্নয়নে কেন্দ্রীয় সরকার কোনও পদক্ষেপ নেয়নি কেন? মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় উত্তরবঙ্গের পাশাপাশি মালদার উন্নয়নও করেছেন। মালদার জন্য চাঁচল সুপারস্পেশালিটি হাসপাতাল, ভূতনি ব্রিজ, সুজাপুরে মাদার অ্যান্ড চাইল্ড হাব, মালদা মেডিকেল কলেজে লিকুইড অক্সিজেন প্ল্যান্ট, ১১টি কৃষক বাজার করা হয়েছে।



মন্ত্রী সাবিনা ইয়াসমিন জানান, উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন দফতর যথেষ্ট ভালো কাজ করছে। ২০১১ সালে ক্ষমতায় আসার পর উত্তরবঙ্গের উন্নয়নের জন্যই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন দফতর চালু করেছেন। বিজেপি শুধু উত্তরবঙ্গকে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল করে মাইলেজ নেওয়ার চেষ্টা করছে। যারা আজ বিজেপি থেকে জিতেছেন, তাঁরাই নিজেদের ভুল বুঝে তৃণমূলে যোগদান করবেন।




আমাদের মালদা এখন টেলিগ্রামেও। জেলার প্রতিদিনের নিউজ পড়ুন আমাদের অফিসিয়াল চ্যানেলে। সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন

বিজ্ঞাপন

Malda-Guinea-House.jpg

আরও পড়ুন

bottom of page