বিজ্ঞাপন

বামনগোলায় জলবন্দি অন্তত ২৫ হাজার মানুষ


জলবন্দি হয়ে পড়েছেন কয়েক হাজার মানুষ৷ কয়েকশো বাড়ি এখন জলের তলায়৷ তলিয়ে গিয়েছে কয়েক হাজার একর কৃষিজমিও৷ দক্ষিণ দিনাজপুর থেকে নেমে আসা জলে ভেসে গেল মালদার বামনগোলা ব্লকের বিস্তীর্ণ অংশ৷ পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে এলাকায় এলাকায় ঘুরছেন বিডিও, এলাকার বিধায়ক ও পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি৷ তবে এখনও পর্যন্ত ক্ষয়ক্ষতির পূর্ণাঙ্গ তথ্য পাওয়া যায়নি৷


বকচর গ্রামের জামাইপাড়ায় কয়েকজন গর্ভবতী মহিলা আটকে পড়েছেন৷ তাঁদের এখনও উদ্ধার করা যায়নি৷ জলের নীচে চলে গিয়েছে বেশিরভাগ গ্রামের নলকূপ সহ অন্যান্য পানীয় জলের উৎস৷ স্বাভাবিকভাবেই জানীয় জলের সংকট দেখা দিয়েছে এলাকা জুড়ে৷

টানা তিনদিনের ভারি বৃষ্টি সহ বিভিন্ন দিক থেকে নেমে আসা জলে রবিবার থেকেই বন্যা শুরু হয়ে যায় দক্ষিণ দিনাজপুর জেলায়৷ হু হু করে বাড়তে তাকে আত্রেয়ী, পুনর্ভবা, টাঙন সহ প্রায় প্রতিটি নদীর জল৷ সেই জল গতকাল রাত থেকে নামতে শুরু করে৷ এতেই বন্যা শুরু হয়ে যায় বামনগোলার বিস্তীর্ণ অংশে৷ এই মুহূর্তে সেখানে পুনর্ভবা, টাঙন ও ব্রাহ্মণী নদী মিলেমিশে একাকার হয়ে গিয়েছে৷ জলের নীচে চলে গিয়েছে গাড়াপাড়া, নবাবনগর, আইশানি, ভোলামাসনা, বকচর, খোকসান, হরিশঙ্করপুর, সামসাবাদ, সাতমারি, বাদিয়াপাড়া, গোয়াপাড়া সহ প্রায় ২৫টি গ্রাম৷ জলবন্দি হয়ে পড়েছেন অন্তত ২৫ হাজার মানুষ৷ জলের তোড়ে ভেসে গিয়েছে বেশ কিছু গবাদি পশুও৷ তলিয়ে গিয়েছে কয়েক হাজার একর আমন ধানের জমি৷ এখনও অনেক জায়গায় দুর্গত মানুষ জল থেকে বেরিয়ে আসতে পারেননি৷ প্রশাসনের পক্ষ থেকেও তাঁদের উদ্ধার করা যায়নি৷ সমস্যা দেখা দিয়েছে নৌকোর৷ সবচেয়ে বড়ো ভাবনার বিষয়, বকচর গ্রামের জামাইপাড়ায় কয়েকজন গর্ভবতী মহিলা আটকে পড়েছেন৷ তাঁদের এখনও উদ্ধার করা যায়নি৷ জলের নীচে চলে গিয়েছে বেশিরভাগ গ্রামের নলকূপ সহ অন্যান্য পানীয় জলের উৎস৷ স্বাভাবিকভাবেই জানীয় জলের সংকট দেখা দিয়েছে এলাকা জুড়ে৷ স্থানীয়দের অভিযোগ, এখনও এলাকায় সরকারি ত্রাণ পৌঁছোয়নি৷

বন্যার খবর পেয়েই এদিন সকাল থেকে এলাকা পরিদর্শনে বেরিয়ে পড়েন এলাকার বিধায়ক খগেন মুর্মু, পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি পিংকি হালদার ও বামনগোলার বিডিও শুভঙ্কর মজুমদার৷ বিধায়ক জানান, এই মুহূর্তে সবচেয়ে বড়ো সমস্যা দেখা দিয়েছে নৌকোর৷ নৌকোর অভাবে জলবন্দি মানুষকে উদ্ধার করা যাচ্ছে না৷ নিজেদের প্রচেষ্টায় কিছু মানুষ উঁচু জায়গায় চলে আসতে পারলেও বেশিরভাগই এখনও নিজেদের বাড়িতে আটকে পড়েছেন৷ জলের স্রোত এতটাই বেশি যে ছোটো নৌকো নিয়ে দুর্গত এলাকায় যাওয়া সম্ভব হচ্ছে না৷ তিনি ব্লক প্রশাসনকে বিষয়টি জানিয়েছেন৷ বিডিও শুভঙ্কর মজুমদার বলেন, বন্যার খবর পেয়েই তিনি এদিন সকাল থেকে বেরিয়ে পড়েছেন৷ নৌকোর সমস্যাটি বাস্তব৷ অন্যান্য ব্লক থেকে নৌকো আনার চেষ্টা চলছে৷ তিনি জেলা প্রশাসনকেও বিষয়টি জানিয়েছেন৷ তিনি খবর পেয়েছেন, বকচর গ্রামে কয়েকজন প্রসূতি জলে আটকে রয়েছেন৷ তাঁদের দ্রুত উদ্ধার করার চেষ্টা চলছে৷ দুর্গত মানুষদের জন্য ত্রাণেরও ব্যবস্থা করা হচ্ছে৷ উঁচু এলাকার স্কুলগুলিতে অস্থায়ী ত্রাণ শিবির খোলা হচ্ছে৷

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, গতকাল রাত থেকেই পুনর্ভবা নদীর জল আরও বাড়তে শুরু করে৷ বাংলাদেশ থেকে জল ঢুকে এই অবস্থার সৃষ্টি করেছে৷ সেই জল বামনগোলা ব্লকেও নেমে আসে৷ এতেই ওই ব্লকের বিস্তীর্ণ এলাকা প্লাবিত হয়েছে৷ দুর্গত এলাকায় ত্রাণ ও ত্রিপল পৌঁছোনোর কাজ শুরু হয়েছে৷ তবে বৃষ্টি না হলে জল দ্রুত নেমে যাবে বলেই মনে করা হচ্ছে৷

এটি একটি প্রতীকী ছবি।

#Misc #DigitalDesk

6 views

বিজ্ঞাপন

Valentines-day.jpg
পপুলার

1097

1

মালদায় পা রেখেই বিরোধী শূন্য করার হুঙ্কার ইয়াসিনের

মালদায় পা রেখেই বিরোধী শূন্য করার হুঙ্কার ইয়াসিনের

594

2

নেত্রীর আগেই নিজেকে প্রার্থী ঘোষণা সাবিত্রীর

নেত্রীর আগেই নিজেকে প্রার্থী ঘোষণা সাবিত্রীর

857

3

দেড়শো জননেতা সহ গেরুয়া শিবিরে তৃণমূলের মালদা জেলা সাধারণ সম্পাদক

দেড়শো জননেতা সহ গেরুয়া শিবিরে তৃণমূলের মালদা জেলা সাধারণ সম্পাদক

1800

4

এখন ১২ মাস কাজ করবে মালদার সিভিক ভলান্টিয়াররা

এখন ১২ মাস কাজ করবে মালদার সিভিক ভলান্টিয়াররা

634

5

কাল মালদায় মমতা, সভামঞ্চে উঠতে করোনা পরীক্ষা

কাল মালদায় মমতা, সভামঞ্চে উঠতে করোনা পরীক্ষা
Earnbounty_300_250_0208.jpg
At the Grocery Shop
টাটকা আপডেট

সাবস্ক্রিপশন

স্বত্ব © ২০২০ আমাদের মালদা

  • Facebook
  • Twitter
  • Instagram
  • YouTube
  • Pinterest
  • RSS